Breaking News
who-play-next-mi-or-kkr

কলকাতা না মুম্বাই : কে যাবে প্লে-অফে

মঙ্গলবার ৭০ বল বাকি থাকতে ৮ উইকেটে রাজস্থান রয়্যালসকে নাস্তানাবুদ করে হারানোর পর, আইপিএল প্লে-অফে যাওয়ার আশা কার্যত উজ্বল হলো মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের। রানরেটেও অনেকটাই এগিয়ে গেল মুম্বাই। তারা কলকাতা নাইট রাইডার্সের সমান ১৩ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে লিগ তালিকার পাঁচে জায়গা করে নিয়েছে। কলকাতার ঠিক ঘাড়েই তারা নিঃশ্বাস ফেলছে। তবে রানরেটের বিচারে কলকাতা একটু এগিয়ে রয়েছে আপাতত। তারা চারে রয়েছে।প্লে-অফের জন্য আর একটি জায়গাই বাকি রয়েছে। আর ওই জায়গার জন্য লড়াই চলছে চারটি দলের মধ্যে।

Advertisement

লিগ টেবিলের এখন যা পরিস্থিতি, তাতে কলকাতা নাইট রাইডার্স, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স পাঞ্জাব কিংস, রাজস্থান রয়্যালস- এই চার দলের মধ্যে যে কেউ আইপিএলের প্লে-এফে উঠতে পারে। তবে পাঞ্জাব কিংস ও রাজস্থান রয়্যালসের চাপটা এখন একটু বেশি। তাদের ক্ষেত্রে অঙ্কের হিসাবটা অত্যন্ত জটিল হয়ে রয়েছে। প্রধান লড়াই এখন কলকাতা আর মুম্বাইয়ের। এখন প্রশ্ন হলো, চতুর্থ দল হিসেবে কারা যাবে প্লে অফে?

১) নাইটদেরই যাওয়ার অঙ্কটা সবচেয়ে সোজা। মোটামুটি একটু বেশি ব্যবধানে শেষ ম্যাচ রয়্যালসকে হারাতে পারলেই সরাসরি প্লে-অফের টিকিট কেটে ফেলবে ইয়ন মর্গ্যান ব্রিগেড। আর যদি মুম্বাই পরের ম্যাচে হেরে যায়, তবে সাধারণভাবে জিতলেও প্লে-অফে চলে যাবে কলকাতা। আর মুম্বাই যদি সাধারণভাবে জেতে, সে ক্ষেত্রে নাইটরা রাজস্থানকে হারালেই চলবে। মোদ্দা কথা, নাইট রাইডার্সকে জিততেই হবে। আর সব দলের মধ্যে কলকাতার রানরেট বেশি থাকায় প্লে অফে যাওয়ার সুযোগ তাদেরই বেশি থাকবে। যদি না বড় কোনো অঘটন ঘটে।

Advertisement

২) মঙ্গলবার রাজস্থান রয়্যালস ম্যাচের মতো সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধেও ধামাকাদার পারফরম্যান্স করে জিততে হবে। মানে বড় ব্যবধানে হারাতে হবে হায়দরাবাদকে। রানরেটটা অনেকটাই বাড়াতে হবে। তা না হলে লাভ নেই। কারণ কলকাতা জিতে গেলে রোহিতরা রানরেটের জন্য পিছিয়ে পড়বে। আর কলকাতা হেরে গেলে, মুম্বই পরের ম্যাচ জিতে গেলে, প্লে-অফের টিকিট তারা সরাসরি পাকা করবে।

৩) পাঞ্জাব কিংস ও রাজস্থান রয়্যালসের প্লে-অফে যাওয়ার অঙ্কটা এখন খুবই জটিল। তাদের বিশাল বড় ব্যবধানে জিততে হবেই। যাতে রানরেট একলাফে অনেকটা বেড়ে যায়। মুম্বাই ও কলকাতাকে পয়েন্ট নষ্ট করতে হবে। মোদ্দা কথা, এই দুই দল খুবই জটিল পরিস্থিতিতে রয়েছে। প্লে-অফে যাওয়ার আশা একেবারেই ক্ষীণ।

Advertisement

 

Advertisement

কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত প্রদান করুন।

About Dipok Deb Nath

Check Also

বাংলাদেশ – ভারত সিরিজ ‘ক্রিকেটাররা নিউজিল্যান্ড থেকে বাংলাদেশে যেতে পারলে কোচরা কেন নয়’

বিশ্বকাপ হতাশার পর নিউজিল্যান্ড সফরে বেশ কয়েকজন সিনিয়র ক্রিকেটারসহ কোচদের বিশ্রাম দিয়েছে বোর্ড অব কন্ট্রোল …

Leave a Reply

Your email address will not be published.