Breaking News

রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর হয়ে সর্বকালের সেরা পাঁচ রান স্কোরার

রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর হয়ে সর্বকালের সেরা পাঁচ রান স্কোরার

২০২১ সালের আইপিএল-এর শেষ মরশুম থেকে নিজের পারফরম্যান্সটি ফিরিয়ে আনতে পারলে তরুণ দেবদূত পদিক্কাল ষষ্ঠ স্থানে উঠতে পারবেন।

রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু (আরসিবি) ২০০৮ সালে উদ্বোধনী মরসুমের পর থেকে তাদের তালিকায় বিরাট কোহলিকে পেয়েছেন। প্রথমদিকে রস টেলর, কেভিন পিটারসেন এবং জ্যাক ক্যালিসের মতো ক্রিস গেইল এবং সাম্প্রতিক বছরগুলিতে এবি ডি ভিলিয়ার্স, আরসিবি সর্বদা আন্তর্জাতিক সুপারস্টারদের দিয়ে ব্যাটিং অর্ডার নিয়ে গর্বিত করেছে।

২০২১ সালের আইপিএল-এর শেষ মরশুম থেকে নিজের পারফরম্যান্সটি আবার ফিরিয়ে আনতে পারলে তরুণ দেবদূত পদিক্কাল ষষ্ঠ স্থানে উঠতে পারবেন।

বিরাট কোহলি – ৬৩০২ রান

আইপিএলের ইতিহাসে সর্বাধিক সুপরিচিত ব্যাটসম্যান, ৬০০০ রানের একমাত্র অতিক্রমকারী। তিনি মোট পাঁচটি সেঞ্চুরি এবং ৪১ টি হাফ-সেঞ্চুরিও করেছেন। আইপিএল ২০১ ১-তে তাঁর ৯৭৩ রানের রেকর্ডটি একক মৌসুমে কোনও ব্যক্তি দ্বারা সর্বোচ্চ রান রইল। তিনি যখন আইপিএলে৫০০০ রানে পৌঁছেছিলেন, তখন তিনি সবচেয়ে দ্রুততম ল্যান্ডমার্কে পৌঁছেছিলেন ১৬৫ ইনিংসে।

এবি ডি ভিলিয়ার্স – ৪২০৯ রান

আইপিএলের সবচেয়ে প্রভাবশালী বিদেশী খেলোয়াড় ডি ভিলিয়ার্স ২০১১ সালে যোগদানের পর থেকে অধিনায়ক কোহলির সাথে একটি শক্তিশালী সমন্বয় তৈরি করেছেন। পরের সাত বছর ধরে নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত ক্রিস গেইলের পাশাপাশি ডি ভিলিয়ার্স ব্যাঙ্গালোরের জন্য একটি তারকা সমেত ত্রয়ী গঠন করেছিলেন।

আরো পড়ুনঃ জাসপ্রিত বুমরাহ থেকে কাইরন পোলার্ড – পাঁচ  খেলোয়াড়দের নজর রাখার জন্য বলা হয়েছে।

ডি ভিলিয়ার্স আইপিএলের ইতিহাসে দুটি সর্বোচ্চ অংশীদারিত্বের সাথে জড়িত ছিলেন, দুজনেই কোহলির সাথে। সবচেয়ে বড়টি ছিল গুজরাট লায়ন্সের বিপক্ষে আইপিএল ২০১৬ সালে যখন দ্বিতীয় উইকেটে ২২৯ রানের জুটি গড়েন তারা।

ক্রিস গেইল – ৩৪২৩ রান

ক্রিস গেইল আইপিএলে সপ্তম আসরে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী, আরসিবি-র অর্ডারের শীর্ষে এসে তাঁর ৪৭৭২ রানের বেশিরভাগই রয়েছেন। লিগে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর (১৭৫*) রেকর্ডটি তিনি রেখেছেন এবং তিনি আইপিএলে সর্বাধিক ছক্কা মেরেছে ৩৪৯ টানা দুই আইপিএল মরসুমে অরেঞ্জ ক্যাপ জয়ের একমাত্র ব্যাটসম্যান গেইলও।

জ্যাক ক্যালিস – ১২৭১ রান

ক্যালিস কেকেআরে যাওয়ার আগে আইপিএলের প্রথম তিনটি মৌসুমে আরসিবির হয়ে খেলেছিলেন কিন্তু এই তিন বছরে দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহ করেছিলেন। কেকেআরে তার ভূমিকার মতো ক্যালিস আরসিবিতে ১১৩ গড়ে স্ট্রাইক রেটে ব্যাট করেছিলেন, অন্যদিকে উইকেটের পতনের ক্ষতিপূরণ দেওয়ার জন্য প্রায়শই ইনিংসের এক প্রান্ত ধরে রেখেছিলেন।

রাহুল দ্রাবিড় – ১১৩২ রান

প্রথম তিন বছর আরসিবির আইকন খেলোয়াড় রাহুল দ্রাবিড় ২০১১ অবধি দলের হয়ে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ স্কোরার ছিলেন এবং প্রথম পাঁচে রয়েছেন। তিনি পাঁচ ব্যাটসম্যানদের একজন যিনি আরসিবির হয়ে ১০০০ এর বেশি রান করেছেন।

 

কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত প্রদান করুন।

About Cricvive Desk

Cricvive is a sports media company that produces original video, audio, and written content for cricvive.com and other media partners, as well as the general public and news organizations.

Check Also

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পরিকল্পনা এখন থেকেই শুরু হয়ে গিয়েছে, বলে দিলেন কার্তিক

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলছে ভারত। কার্তিক জানালেন, বিশ্বকাপের প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছে এর …

Leave a Reply

Your email address will not be published.