Breaking News
bangladesh-loss-againest-SA

দক্ষিণ আফ্রিকার কছে ৬ উইকেটে হেরে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিল বাংলাদেশ।

কাগিসো রাবাদা ও অ্যানরিখ নরকিয়ার দুর্দান্ত বোলিংয়ে বাংলাদেশকে মাত্র ৮৪ রানে গুটিয়ে দেয় দক্ষিণ আফ্রিকা। যদিও সেই সহজ লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ৪ উইকেট হারায় প্রোটিয়া। তবে অধিনায়ক টেম্বা বাভুমা অপরাজিত ৩১ রানের ইনিংস খেলে দক্ষিণ আফ্রিকার ৬ উইকেটের জয় নিশ্চিত করেন। তাতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেল বাংলাদেশ।

Advertisement

জয়ের জন্য ৮৫ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুটা ভালো করতে পারেনি দক্ষিণ আফ্রিকা। ইনিংসের প্রথম ওভারেই সাজঘরে ফেরেন রেজা হেনড্রিকস। পেসার তাসকিন আহমেদের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়ে প্যাভিলিয়নের পথে হাঁটেন ৪ রান করা হেনড্রিকস।

প্রথম ওভারে উইকেট হারালেও নিজেদের খানিকটা গুছিয়ে নেয় প্রোটিয়া। তবে পঞ্চম ওভারে শেখ মেহেদির বলে বোল্ড আউট হয়েছেন ১৫ বলে ১৬ রান করা ডি কক। পাওয়ার প্লের শেষ ওভারে দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে অ্যাইডেন মার্করামকে সাজঘরে ফেরান তাসকিন।

Advertisement

স্লিপে দাঁড়িয়ে থাকা নাইম শেখের হাতে ক্যাচ দিয়ে আউট হয়েছেন ডানহাতি এই ব্যাটার।  নিজের প্রথম তিন ওভারে ১৪ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন তাসকিন। এরপর রাসি ভ্যান ডার ডুসেন ও টেম্বা বাভুমা মিলে দারুণ এক জুটি গড়ে তোলেন। তারা দুজনে মিলে যোগ করেন ৪৭ রান।

নাসুমের বলে তুলে মারতে গিয়ে প্যাভিলিয়নের পথে হাঁটেন ২২ রান করা ডুসেন। খানিকটা দৌড়ে গিয়ে মিড অনে ঝাপিয়ে পড়ে দুর্দান্ত এক ক্যাচ নেন শরিফুল। অধিনায়ক বাভুমা ৩১ রানে অপরাজিত থেকে দক্ষিণ আফ্রিকার ৬ উইকেটের জয় নিশ্চিত করেন। বাংলাদেশের হয়ে তাসকিন দুটি উইকেট নিয়েছেন।

Advertisement

এর আগে টস হেরে ব্যাটিং করতে নেমে সাবধানী শুরু করে বাংলাদেশ। প্রথম তিন ওভারে কোনো উইকেট না হারিয়ে ১৭ রান সংগ্রহ করে টাইগাররা। ইনিংসের চতুর্থ ওভারে কাগিসো রাবাদার বলে তুলে মারতে গিয়ে আউট হয়েছেন ৯ রান করা নাইম শেখ। পরের বলেই লেগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে পড়েন সৌম্য সরকার।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে স্কুপ মারতে গিয়ে আউট হয়েছিলেন মুশফিকুর রহিম। যা নিয়ে সমালোচনায় পড়তে হয়েছিল তাঁকে। ব্যর্থতার ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষেও। রাবাদার বলে এজ হয়ে আউট হয়েছেন তিনি। দুর্দান্ত এক ক্যাচে কোনো রান না করা মুশফিককে ফেরান রেজা হেনড্রিকস।

Advertisement

পাঁচে নেমে থিতু হতে পারেননি অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। পেসার নরকিয়ার বলে ক্যাচ আউট হয়েছেন তিনি। এদিন ৯ বলে মাত্র ৩ রান করেছেন ডানহাতি এই ব্যাটার। ব্যাটিংয়ে এসে প্রথম বলেই বোল্ড হয়েছেন আফিফ হোসেন। ডোয়াইন প্রিটোরিয়াসের দারুণ এক ডেলিভারিতে বলের লাইন মিস করে বোল্ড হয়েছেন বাঁহাতি এই ব্যাটার।

মাত্র ৩৪ রানে ৫ উইকেট হারানো বাংলাদেশকে খানিকটা আশার আলো দেখিয়েছিলেন লিটন। তবে দলীয় ৫০ রান হওয়ার আগে ডানহাতি এই ব্যাটারকেও সাজঘরে ফিরতে হয়। তাবরাইজ শামসির বলে লিগ বিফোর উইকেটের ফাঁদে পড়ে আউট হয়েছেন ৩৬ বলে ২৪ রান করা লিটন। রিভিউ নিলেও শেষ রক্ষা হয়নি এই উইকেটরক্ষক ব্যাটারের।

শেষ দিকে বাংলাদেশের রান বাড়ানোর দায়িত্ব নিয়েছিলেন শেখ মেহেদি হাসান। ডানহাতি এই ব্যাটার ২৫ বলে ২৭ রান করলেও দলের রান একশ পেরোয়নি। নরকিয়া দুই বলে দুই উইকেট তুলে নিয়ে মাত্র ৮৪ রানে অল আউট হয় বাংলাদেশ। প্রোটিয়াদের হয়ে তিনটি করে উইকেট নিয়েছেন রাবাদা ও নরকিয়া।

কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত প্রদান করুন।

About Dipok Deb Nath

Check Also

আগামী চার মাসে পাঁচ দেশের টি২০ লিগ, আমিরশাহিতে প্রথম দিনেই মাঠে নামবে কেকেআর

আগামী ডিসেম্বর থেকে মার্চ পর্যন্ত পাঁচটি দেশে হবে টি-টোয়েন্টি ফ্র্যাঞ্চাইজ়ি লিগ। সেগুলির অন্যতম সংযুক্ত আরব …

Leave a Reply

Your email address will not be published.