Breaking News
babor-azam-toll-india

কেন চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতকে খোঁচা দিলেন বাবর আজম?

ফের একবার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতকে খোঁচা দিলেন বাবর আজম । গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে (বিরাট কোহলির  টিম ইন্ডিয়াকে  হারানোই ২০২১ সালের সেরা মুহূর্ত, এমনটাই বলে দিলেন পাকিস্তানের অধিনায়ক।

সেই ম্যাচের স্মৃতি টেনে বাবর বলছেন, “দল হিসাবে আমাদের বড় প্রাপ্তি ছিল ভারতের বিরুদ্ধে জয়। সেই ১৯৯২ সাল থেকে বিশ্বকাপে ভারতকে হারাতে পারিনি। তাই আমাদের কাছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারতকে হারানো ছিল বছরের সেরা মুহূর্ত।” এরপরেই তিনি যোগ করেছেন, “সবচেয়ে বড় তৃপ্তি হল তরুণ প্রতিভাদের গুরুত্বপূর্ণ সময়ে আমাদের হয়ে খেলতে দেখে। আমরা এখন তরুণ প্রতিভা তুলে আনতে পারছি।”

২০২১ সালের আগে বিশ্বকাপের মঞ্চে কখনও ভারতকে হারাতে পারেনি পাকিস্তান। গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে পর্যন্ত বিশ্বকাপের মঞ্চে ১২টি ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী দেশ। সব ম্যাচেই জিতেছিল ‘মেন ইন ব্লু’ ব্রিগেড। কিন্তু গত বছর সব হিসেব বদলে দিয়েছিলেন শাহিন শাহ আফ্রিদি-মহম্মদ রিজওয়ানরা। ফলে দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভ পর্বের ম্যাচে ভারতকে ১০ উইকেটে হারিয়ে দেয় পাকিস্তান।

২০২১ সালের আগে একদিনের বিশ্বকাপে সাত বার ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে পাঁচ বার পাকিস্তানকে হারিয়েছিল টিম ইন্ডিয়া। যদিও ২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাবর আজমের নেতৃত্বে নতুন ইতিহাস গড়েছে প্রতিবেশী দেশ। ভারতকে হারানো ছাড়াও পাঁচটি ম্যাচ জিতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে উঠেছিল পাকিস্তান।

তবে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সমাপ্তি সুখের হয়নি। সেমি ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে যায় বাবর আজমের দল। সেই হার এখনও তাঁর মনে ক্ষতের মতো বিঁধে আছে।

তিনি শেষে যোগ করেছেন, “সেমি ফাইনালের পরাজয় আমাকে সবচেয়ে বেশি আঘাত দিয়েছে। আমরা দল হিসাবে খুব ভাল ক্রিকেট খেলেছিলাম। কিন্তু শেষটা মোটেও ভাল হল না। সেই আক্ষেপ রয়েই যাবে।”

কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত প্রদান করুন।

About Dipok Deb Nath

Check Also

শাস্তি পেলো ভারত, লাভ হলো পাকিস্তানের

ভারত দলের ব্যাটিং লাইনআপকে বলা হয় বিশ্বসেরা। আর বিশ্বসেরারদের সামনে জো রুট ও জনি বেয়ারস্টোর …

Leave a Reply

Your email address will not be published.